১৬ বছর বয়সী এই কিশোরীর ‘কীর্তি’ দেখলে ভিরমি খাবেন।

বিয়ে পাগল কিশোরী। বিয়ে পাগল হলেও কথা ছিল। কিন্তু সে যা ঘটনা ঘটিয়েছে, যা জানলে বিষ্মিত হবেন। বি রমাদেবী নামে ওই কিশোরী ছেলের বেশে বিয়ে করেছে তিন-তিনটি। ওই কিশোরী তৃতীয় বিয়ে করার পরেই বিষয়টি সামনে আসে। ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ।

অন্ধ্রপ্রদেশের কাডাপ্পা জেলার জামালামাডুগুতে বি রমাদেবীর কীর্তি প্রকাশ্যে আসে মঙ্গলবার। পুলিশ জানিয়েছে, কাশী নয়না মণ্ডলের লিটিকা-লাপাডু গ্রামে বি রমাদেবীর বাড়ি। তামিলনাড়ুর একটি প্রাইভেট স্পিনিং মিলে সে কাজ করে।

কিশোরীর নাম বি রমাদেবী। সে সবসময়ই থাকে ছেলের বেশে। পেড্ডামুডিয়াম মণ্ডলের ভীমাগুণ্ডাম গ্রামের বছর ১৭-র কিশোরী রম্ভা( নাম পরিবর্তিত)-র সঙ্গে বন্ধত্বের সম্পর্ক ছিল রমাদেবীর। যে পুলিভেন্ডুলার একটি মিলে কাজ করে। বন্ধুত্ব থেকে সম্পর্ক গড়ায় ভালবাসার দিকে। মাস দুয়ের আগে তারা বিয়েও করে। কিন্তু রমাদেবীর কীর্তি বুঝতে দুমাস লেগে যায় রম্ভার, যে সে বিয়ে করেছে এক মেয়েকেই। বিষয়টি অভিভাবকদের নজরে আসতেই পুলিশকে জানানোা হয়।

কিশোরীর নাম বি রমাদেবী। সে সবসময়ই থাকে ছেলের বেশে। পেড্ডামুডিয়াম মণ্ডলের ভীমাগুণ্ডাম গ্রামের বছর ১৭-র কিশোরী রম্ভা( নাম পরিবর্তিত)-র সঙ্গে বন্ধত্বের সম্পর্ক ছিল রমাদেবীর। যে পুলিভেন্ডুলার একটি মিলে কাজ করে। বন্ধুত্ব থেকে সম্পর্ক গড়ায় ভালবাসার দিকে। মাস দুয়ের আগে তারা বিয়েও করে। কিন্তু রমাদেবীর কীর্তি বুঝতে দুমাস লেগে যায় রম্ভার, যে সে বিয়ে করেছে এক মেয়েকেই। বিষয়টি অভিভাবকদের নজরে আসতেই পুলিশকে জানানোা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button