বাবা-মায়ের আদরেই সন্তাদের মেধাশক্তি বাড়ে, রইল বিস্তারিত বিশেষজ্ঞদের পরামর্শ

এই পৃথিবীতে সন্তানদের কাছে বাবা মায়ের বিকল্প কেউ হতে পারে না। সন্তানকে জন্ম দেওয়ার আগে থেকেই বাবা-মা পরিকল্পনা করতে শুরু করে দেন কিভাবে সন্তানকে প্রতিপালন করবেন। সন্তানদের উন্নত জীবনের জন্য এবং তাদের সুস্থ পরিবেশ দেবার জন্য প্রত্যেক অভিভাবক নিজেদের জীবনে করে থাকেন সংগ্রাম। বাবা মায়ের আশীর্বাদ ছাড়া কোন ব্যক্তি নিজের জীবনে উন্নতি লাভ করতে পারে না।

প্রত্যেক বাবা-মা তাদের সন্তানকে জীবনের সবটুকু সুখ শান্তি এনে দেবার চেষ্টা করে থাকেন। সন্তান যাতে উচ্চশিক্ষায় শিক্ষিত হয়ে খ্যাতি অর্জন করতে পারে, তার জন্য অক্লান্ত পরিশ্রম করেন অভিভাবকরা। কিন্তু জন্মগতভাবে মেধাবী হওয়া সকলের হয়ে ওঠে না। মেধার সঠিক ব্যবহার এবং পরিচর্যা না করার ফলে অনেকেই পিছিয়ে পড়তে পারে। কিন্তু সম্প্রতি এক গবেষণায় উঠে এসেছে, আপনি যদি আপনার শিশুর মেধা শক্তি বাড়ানোর চেষ্টা করেন তাহলে,

আপনাকে শিশুকে আদর করতে হবে। শিশুদের যত বেশি আলিঙ্গন করে অথবা জড়িয়ে ধরে আদর করবেন আপনি, ততবেশি শিশুর মস্তিষ্কের বিকাশ হবে। যুক্তরাষ্ট্রের ওহিও নেশনাল children’s হাসপাতালে গবেষকরা জানিয়েছেন, স্বাবলম্বী হয়ে ওঠার জন্য বাবা মায়ের আদর ভীষণভাবে জরুরী সরকারের পক্ষে। বাবা-মা যত বেশি আদর করতে পারবে তার সন্তানকে, তত সন্তানদের বুদ্ধির বিকাশ হবে।

গবেষণা করার জন্য গবেষকরা ১২৫ জন নবজাতকদের বেছে নিয়েছিলেন যাদের দ্বারা এই গবেষণা সম্পন্ন হয়েছিল। গবেষণায় দেখতে পাওয়া যায়, এই শিশুরা প্রে-গনে-ন্সির ফুল টার্মে জন্মেছে, এই সমস্ত শিশুরা প্রিম্যাচিওর শিশুদের তুলনায় অনেক বেশি সাড়া দেয় আদরে। যাদের বাবা মা হাসপাতালে নার্সের থেকে বেশি আদর করেছে সন্তানদের, তাদের মস্তিষ্ক যে কোন বিষয়ে তাড়াতাড়ি প্রতিক্রিয়া জানাচ্ছে। তাই শিশুদের মস্তিষ্ক এবং বুদ্ধির বিকাশের জন্য তাদের আদর করা এবং কোলে নিয়ে নেওয়া খুবই জরুরী।।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button