যে কারণে বিয়ের পর পরিবারের সাথে কানাডা চলে গেছেন সালমান খানের হিরোইন রম্বভা, রইলো বিস্তারিত

সিনেমা জগতে এমন অনেক অভিনেত্রী রয়েছেন যারা চলচ্চিত্রে অভিনয় করে দর্শকদের মন জয় করে তাদের কাছ থেকে অনেক ভালোবাসা পেয়েছেন কিন্তু একটা সময়ে তারপর ইন্ডাস্ট্রি থেকে অনেক দূরে চলে গেছেন। আজকের এই নিবন্ধে আমরা আপনাদের এমনই একজন অভিনেত্রীর কথা বলতে যাচ্ছি, যিনি কাজ করেছেন সালমান খান এর সাথে কিন্তু তারপরেই তিনি চলচ্চিত্র জগৎ থেকে নিজেকে দূরে সরিয়ে নেন।

আমরা কথা বলছি অভিনেত্রী রম্ভার। অভিনেত্রী রম্ভা কোনদিনই পরিচযয়ে আগ্রহী ছিলেননা। রম্ভা নিঃসন্দেহে তেলেগু চলচ্চিত্র দিয়ে তার ক্যারিয়ার শুরু করেছিলেন কিন্তু নব্বই দশকে তিনি বলিউডের শীর্ষ অভিনেত্রীদের মধ্যে একজন ছিলেন এবং তাঁর অভিনয় দ্বারা তিনি সকলের প্রিয় হয়ে উঠেছিলেন।

বলিউডের লোকেরা তাকে দিব্যা ভারতীর জমজ বোন বলে ডাকত কিন্তু কয়েকটি হিট ছবি করার পরে রম্ভার বলিউড ক্যারিয়ার নিচে নামতে শুরু করে এবং আস্তে আস্তে তার ফিল্ম পাওয়া বন্ধ হয়ে যায়। তার আসল নাম ছিল বিজয়লক্ষ্মী।

1992 সালে তিনি বলিউডে পদার্পণ করেছিলেন। রম্ভা বলিউডে 17 টি এবং দক্ষিণ ভারতীয় 100 টিরও বেশি ছবিতে কাজ করেছেন এবং বর্তমানে শিশুদের গ্ল্যামার জগৎ থেকে দূরে রাখতে ব্যস্ত তিনি।

শেষবারের মতন তাকে দেখা গিয়েছিল 2010 সালের তামিল ছবি ‘পেন সিংগাম’ -এ। এরপর থেকে নিজেকে চিরতরে দূরে সরিয়ে নেন এবং এই বছরের 8 এপ্রিল কানাডা-ভিত্তিক ব্যবসায়ীকে বিয়ে করেছেন তিনি এবং এরপর রম্ভা কানাডায় চলে যান। রম্ভা জানতে পারেন তার স্বামী ইতিমধ্যে বিবাহিত ছিলেন কিন্তু সেটি তার কাছে গোপন করা হয়।

বিয়ের এক বছর পর রম্ভা 2011 সালের জানুয়ারিতে বড় মেয়ে লানিয়ার জন্ম দেন এবং এরপরে মার্চের 2015 সালে তাঁর ছোট মেয়ের জন্ম হয়। 23 সেপ্টেম্বর 2018 তৃতীয় সন্তানের জন্ম দেন।

2008 সালে রম্ভা লাইমলাইটে আসেন যখন তার আত্মহত্যার অভিযোগ উঠে এসেছিল, এমন কিছু ঘটেছিল যে তাকে অজ্ঞান অবস্থায় হাসপাতালে ভর্তি করা হয় এবং মিডিয়ায় খবর ছড়ায় যে রম্ভা আত্মহত্যা করার চেষ্টা করেছিলেন এবং এই সব খবর অস্বীকার করে তিনি মিডিয়াকে জানান যে তিনি কখনও আত্মহত্যার চেষ্টা করেনি এবং তিনি বলেন, “আমার বাড়িতে লক্ষ্মীপুজো ছিল যার কারণে আমি সারাদিন নির্জলা উপবাস করেছিলাম যার জেরে এমন ঘটনা ঘটে।”

রমা 2017 সালে টিভি শো ‘কিংস অফ কমেডি জুনিয়র’ এ কাজ করেছেন। তিনি নিজেকে চলচ্চিত্র থেকে দূরে সরিয়ে নিয়ে তার পরিবারের সাথে টরন্টোতে চলে আসেন এবং রম্ভার দুটি মেয়ে একটি ছেলে রয়েছে।

তিনি প্রায়শই সোশ্যাল মিডিয়ায় ছবি শেয়ার করেন। রম্ভা একজন জনপ্রিয় অভিনেত্রী ছিলেন। 90 দশকের চলচ্চিত্র জগতের জনপ্রিয় মুখ ছিলেন তিনি কিন্তু বর্তমানে দীর্ঘদিন থেকে দূরে রয়েছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button