চীন সীমান্তে ‘পৌরাণিক’ অস্ত্রে সজ্জিত হবে ভারতীয় সেনাবাহিনী, বিশেষ ভাবে তৈরি করেছে এই ত্রিশূল, বজ্র,

সমগ্র বিশ্ব আমাদের সেনাবাহিনীর সাহসিকতার উদাহরণ দেয়। গত কয়েক বছরে জাওয়ানদের মেড ইন ইন্ডিয়া অস্ত্র সরবরাহ করা হচ্ছে। এইসবের মাঝেই উপযোগী একটি কোম্পানি এমন অস্ত্র তৈরি করেছে যা শ_ত্রুদের থেকে পরিত্রান দিতে পারে। দাবি করা হয়েছে, গত বছর গালভান উপত্যকায় যেভাবে চীনা সৈন্যদের সঙ্গে সং_ঘ_র্ষ হয়েছিল এমন পরিস্থিতিতে অস্ত্র-গুলি খুব উপকারী প্রমাণিত হতে পারে। সব রিপোর্টে বলা হচ্ছে যে, চীনের সৈন্যরা গালভান উপত্যকায় ভারতীয় সৈন্যদের অ_প্রা_ণ_ঘা_তী অস্ত্র দিয়ে আ_ক্র_ম_ণ করেছিল।

এরপরে নয়ডা ভিত্তিক একটি স্টার্ট-আপস ভারতের নিরাপত্তা বাহিনীকে এই ধরনের অস্ত্র সরবরাহ করার কাজ করছে। কোম্পানিটি তৈরি করেছে চামড়া বিহীন একটি অস্ত্র। এতে করে যানবাহনও পাঞ্চার করা যেতে পারে এবং এটি ইন্সটল করার জন্য একটি বোতাম টিপে কাজ শুরু করতে হবে। পরের অস্ত্রটি একটি ধাতব লাঠির মতন এতে বিদ্যুৎ চালিত হয়। এটি কাঁটাতারের স্পাইক এর সাথে সংযুক্ত করা হয়।

বুলেটপ্রুফ যানবাহন এর টায়ারও পাঞ্চার হতে পারে এতে। পরের অস্ত্রটি হচ্ছে স্যাপার পাঞ্চ। এটি একটি অ_প্রা_ণ_ঘা_তী অস্ত্র। স্যাপার পাঞ্চটি শত্রুকে কারেন্টের shock দিতে সাহায্য করবে। সর্বশেষ অস্ত্রটি হলো একটি বৈদ্যুতিক লাঠি যেখানে একটি নিরাপত্তা সুইচ রয়েছে। যদি শত্রু এটি আপনার কাছ থেকে ছিনিয়ে নেয় তবুও সেটা সে ব্যবহার করতে পারবে না।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button