এরই মধ্যে ইলন মাস্ক বিশ্ব দরবারে সবাইকে চমকে দিয়ে করে ফেললেন এই কাজ! জানলে অবাক হবেন

ইলেকট্রিক গাড়ির কোম্পানি টেসলার আয় এবং মুনাফা উভয়ই তৃতীয় ত্রৈমাসিকেও নতুন রেকর্ড এ পৌঁছেছে। কোম্পানির শেয়ার কমাগত বাড়ছে এবং এই বছর কোম্পানির স্টক 18% বেড়েছে। কোম্পানির প্রধান নিবার্হী এলন মাস্কের সম্পদ এবছর 72 বিলিয়ন ডলার বৃদ্ধি পেয়েছে। যেভাবে এলন মাস্কের সম্পদ বৃদ্ধি পাচ্ছে তাতে বলা যেতে পারে যে তিনি হতে পারেন বিশ্বের প্রথম ট্রিলিয়নিয়ার।

আগামী সময়ে তার মোট সম্পদ 1 ট্রিলিয়ন ডলারও হতে পারে। মর্গান স্টানলে বিশ্লেষক অ্যাডাম জোন্সের মতে, এলন মাস্কের কোম্পানী স্পেসএক্সের ব্যাপক বৃদ্ধির সম্ভাবনা দেখে মনে হচ্ছে খুব শীঘ্রই ট্রিলিয়নের কোটায় পড়ছে এলন মাস্ক। এমন পরিস্থিতিতে মাস্কের বিশ্বের প্রথম ট্রিলিয়নার হওয়ার সম্ভাবনা বেড়েছে।

টেসলার তৃতীয় প্রান্তিকের ফলাফল অনুযায়ী, কোম্পানির নিট আয় 1.62 বিলিয়ন ডলার ছাড়িয়েছে। আসুন আমরা আপনাকে বলি যে, গত ত্রৈমাসিকে কোম্পানির নিট আয় ছিলো 331 বিলিয়ন ডলার। সংস্থাটি তাদের রিপোর্টে বলেছেন যে, চিপের ঘাটতি এবং বন্দরে উপচে পড়া ভিড়ের কারণে টেসলার প্লান্টগুলি সম্পূর্ণ ক্ষমতা নিয়ে কাজ করতে পারছে না।

কোম্পানির কর্মকর্তারা বলছেন এর উৎপাদন দলগুলি এই সমস্যাগুলো কাটিয়ে উঠতে কঠোর পরিশ্রম করছে। ব্লুমবার্গ বিলিয়নিয়ার্স’ ইনডেক্স অনুযায়ী, মাস্কের মোট সম্পদ 242 বিলিয়ন ডলারে পৌঁছেছে। বিশ্বের ধনীদের তালিকায় জেফ বেজোসকে পিছনে ফেলেছেন তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button